১৫০০০ টাকার মধ্যে গেমিং ফোন |

 


১৫০০০ টাকার মধ্যে গেমিং ফোন | Gaming phone under 15000 taka 


১৫ হাজার টাকা বাজেটের মধ্যে ভালো মোবাইল বা স্মার্টফোন খুঁজছেন? ১৫ হাজার টাকার মধ্যে ২০২২ সালে কেনার মতো অসংখ্য ভালো অপশন রয়েছে। ১৫ হাজার টাকার মধ্যে স্যামসাং, শাওমি, রিয়েলমি সহ প্রায় প্রত্যেকটি জনপ্রিয় স্মার্টফোন কোম্পানি এক বা একাধিক ফোন দেশের বাজারে অফিসিয়াল বিক্রি করছে।


চলুন জেনে নেয়া যাক, ১৫ হাজার টাকা বাজেটের মধ্যে ২০২২ সালে কিনতে পারবেন এমন ভালো মোবাইল স্মার্টফোনসমুহ সম্পর্কে। আমাদের এই তালিকায় ১৫ হাজার টাকার মধ্যে পাওয়া যায় এমন সকল সেরা স্মার্টফোন অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।


  Infinix Hot 11S


ইনফিনিক্স হট ১১এস15000 টাকার মধ্যে মোবাইল তালিকায় আমাদের পছন্দের তালিকার শীর্ষে আছে ইনফিনিক্স হট ১১এস। থাকবেই বা না কেন? এই বাজেটে এই ফোনটিকে পেছনে ফেলার মত ফোন নেই বললেই চলে। মিডিয়াটেকের হেলিও জি৮৮ গেমিং প্রসেসর আর ৯০ হার্জের ফুলএইচডি প্লাস আইপিএস এলসিডি ডিসপ্লের সমন্বয়ে গেমারদের জন্য ফোনটি একটি দারুণ কম্বিনেশন।

  • প্রসেসর: মিডিয়াটেক হেলিও জি৮৮।
  • ডিসপ্লে: ৬.৭৮ ইঞ্চি আইপিএস এলসিডি।
  • ডিসপ্লে রেজোলিউশন: ১০৮০*২৪৮০।
  • ব্যাটারি: ৫০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার আওয়ার।
  • মেইন ক্যামেরা: ৫০ মেগাপিক্সেল।
  • সেলফি ক্যামেরা: ৮ মেগাপিক্সেল।
  • সিকিউরিটি: ফিঙ্গারপ্রিন্ট, ফেইস আনলক।
  • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১১।
  • ডাইমেনশন: ১৬৮.৯*৭৭*৮.৮ মিলিমিটার।
  • ওজন: ২০৫ গ্রাম।
  • ফোনটির ৪/১২৮ ভ্যারিয়্যান্টটি পাওয়া যাচ্ছে ১৪৯৯০ টাকায়।

 Walton RX 8 Mini


১৫ হাজার টাকার মধ্যে ভালো মোবাইল গুলোর মধ্যে দেশীয় ব্র্যান্ড ওয়ালটনের অন্যতম সেরা অফার বলা চলে ওয়ালটন আরেক্স ৮ মিনি ফোনটিকে। আরএক্স ৭ মিনির দুর্দান্ত সাফল্যের পরে আরএক্স ৮ মিনি ফোনটিও বেশ প্রশংসিত হয়েছে।

কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৬০ প্রসেসরের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের সাথে স্টাইলিশ গ্লাস বডির ডিজাইন আর অসাধারণ ডিসপ্লের কম্বিনেশনে ফোনটিকে এককথায় অসাধারণ বলা চলে। 

১৩ মেগাপিক্সেলের সনির মেইন ক্যামেরার সাথে আল্ট্রাওয়াইড আর ডেপথ সেন্সর তো আছেই। কম দামে যারা ভালো গেমিং ফোন খুঁজছেন, সেসব গেমারদের জন্য ১৩ হাজার টাকার মধ্যে এই ফোনটি একটি ভালো চয়েস হতে পারে।

    স্পেসিফিকেশন :

    • প্রসেসর: কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৬০।
    • ডিসপ্লে: ৬.৩ ইঞ্চি আইপিএস এলসিডি।
    • ডিসপ্লে রেজোলিউশন: ১০৮০ * ২৩৪০।
    • ব্যাটারি: ৩৬০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার আওয়ার।
    • মেইন ক্যামেরা: ১২ মেগাপিক্সেল।
    • সেলফি ক্যামেরা: ১৩ মেগাপিক্সেল।
    • সিকিউরিটি: ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ফেস আনলক।
    • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১১।
    • ডাইমেনশন: ১৫৮.৯ * ৭৫.৫ * ৮.৪ মিলিমিটার।
    • ওজন: ১৭৮ গ্রাম।
    • ওয়ালটন আরএক্স ৮ মিনি ফোনটির ৪/৬৪ জিবি ভ্যারিয়ান্টটি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে ১২৯৯৯ টাকায়।


     Realme C25S

      স্পেসিফিকেশন 

      • প্রসেসর: মিডিয়াটেক হেলিও জি৮৫।
      • ডিসপ্লে: ৬.৫ ইঞ্চি আইপিএস এলসিডি।
      • ডিসপ্লে রেজোলিউশন: ৭২০ * ১৬০০।
      • ব্যাটারি: ৬০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার আওয়ার।
      • মেইন ক্যামেরা: ৪৮ মেগাপিক্সেল।
      • সেলফি ক্যামেরা: ৮ মেগাপিক্সেল।
      • সিকিউরিটি: ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ফেস আনলক।
      • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১১।
      • ডাইমেনশন: ১৬৪.৫ * ৭৫.৯ * ৯.৬ মিলিমিটার।
      • ওজন: ২০৯ গ্রাম।
      • রিয়েলমি সি২৫এস ফোনটির ৪/৬৪ জিবি ভ্যারিয়ান্টটি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে ১৪৪৯০ টাকায়।


       Oppo A16

      ক্যামেরা প্রিয় ব্যবহারকারীদের 15000 টাকার মধ্যে ভালো মোবাইল বাংলাদেশ এর বাজারে মাঝে অন্যতম পছন্দের নাম অপো। মিডিয়াটেকের হেলিও জি৩৫ প্রসেসর, ১৩ মেগাপিক্সেলের মেইন ক্যামেরার সাথে স্টাইলিশ ডিজাইন- যেকোনো লাইট ইউজারের জন্য বেশ ভালো একটি ফোন।


      স্পেসিফিকেশন :

        • প্রসেসর: মিডিয়াটেক হেলিও জি৩৫।
        • ডিসপ্লে: ৬.৫২ ইঞ্চি আইপিএস এলসিডি।
        • ডিসপ্লে রেজোলিউশন: ৭২০ * ১৬০০।
        • ব্যাটারি: ৫০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার আওয়ার।
        • মেইন ক্যামেরা: ১৩ মেগাপিক্সেল।
        • সেলফি ক্যামেরা: ৮ মেগাপিক্সেল।
        • সিকিউরিটি: ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ফেস আনলক।
        • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১১।
        • ডাইমেনশন: ১৬৩.৮ * ৭৫.৬ * ৮.৪ মিলিমিটার।
        • ওজন: ১৯০ গ্রাম।
        • অপ্পো এ১৬ ফোনটির /price ১২৯৯০ টাকায়।

         Realme C25Y

        ১৫ হাজার টাকায় রিয়ালমি ফোন১৫ হাজার টাকার মধ্যে রিয়েলমি বেশ ভালো কিছু ফোন অফার করছে। বিশেষত সি২৫ ফোনটি বেশ জনপ্রিয় হওয়ার পরে সি২৫ওয়াই ফোনটি রিলিজ করে রিয়েলমি। ইউনিএসওসি টি৬১০ প্রসেসরের ফোনটিতে রয়েছে ৫০ মেগাপিক্সেলের মেইন ক্যামেরা ও ৮ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা। ফোনটির ৫০০০ মিলি-অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারির সাথে বক্সেই রয়েছে ১৮ ওয়াটের ফাস্ট চার্জার।


        স্পেসিফিকেশন :

        • প্রসেসর: ইউনিএসওসি টি৬১০।
        • ডিসপ্লে: ৬.৫ ইঞ্চি আইপিএস এলসিডি।
        • ডিসপ্লে রেজোলিউশন: ৭২০ * ১৬০০।
        • ব্যাটারি: ৫০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার আওয়ার।
        • মেইন ক্যামেরা: ৫০ মেগাপিক্সেল।
        • সেলফি ক্যামেরা: ৮ মেগাপিক্সেল।
        • সিকিউরিটি: ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ফেস আনলক।
        • অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড ১১।
        • ডাইমেনশন: ১৬৪.৫ * ৭৬.০ * ৯.১ মিলিমিটার।
        • ওজন: ২০০ গ্রাম।
        • রিয়েলমি সি২৫ওয়াই ফোনটির ভ্যারিয়ান্টটি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে ১৩৯৯০ টাকায়।


         Oppo A33


        Oppo A3(2020) স্মার্টফোনটি সম্পূর্ণ পূর্বের Vivo Y20 এর মত দেখতে এই ফোনে রয়েছে 90Hz রিফ্রেশ রেট যা এই নেটওয়ার্কে অন্য কোন ফোনে আপনাকে অনুরোধ করতে হবে।

        90Hz রিফ্রেশ রেট প্রদর্শন করুন। শুধু অ্যানিমেশনটাও অনেক সুন্দর এই 90Hz রিফ্রেশ রেট এর কারণে।

        এই ফোন দিয়েও টুকটাক গেমিং করতে পারবেন। আর সাথে 500mAh এর শক্তিশালী ব্যাটারি এবং 18W এর ফাস্ট চার্জিং সিস্টেম তো আছেই।

        স্পেসিফিকেশন:

        • ডিসপ্লে: 90 Hz রিফ্রেশ রেট সহ 6.5″ IPS LCD!
        • প্রসেসর: স্ন্যাপড্রাগন 460
        • GPU: ADRENO 610
        • প্রধান ক্যামেরা: 13MP+2MP+2MP
        • সামনের ক্যামেরা: 8MP
        • RAM: 3GB
        • রম: 32 জিবি
        • ব্যাটারি: 5000mAh
        • চার্জার: 18W
        • মূল্য: 13999 টাকা


          Infinix Hot 9 Play


        আকর্ষণীয় ডিজাইন আর কম দামের মধ্যে ৪ জিবি র‍্যাম ও ৬৪ জিবি র‍্যাম অফার করার মাধ্যমে ১৫ হাজার টাকার মধ্যে সেরা ফোনের তালিকার স্থান দখল করে নিয়েছে ইনফিনিক্স হট ৯ প্লে ফোনটি। ৬.৮২ ইঞ্চির বিশাল এইচডি+ ডিসপ্লে থাকছে ফোনটিতে।

        ইনফিনিক্স হট ৯ প্লে ফোনটিতে রয়েছে ১৩ মেগাপিক্সেলের ব্যাক ক্যামেরা ও ৮ মেগাপিক্সেলের সেল্ফি ক্যামেরা। ফোনটিতে রয়েছে ৬০০০ মিলিএম্প এর বিশাল ব্যাটারি। ফোনটি চলবে মিডিয়াটেক এর হেলিও এ২৫ প্রসেসর দ্বারা। এছাড়াও ফোনটির পেছনে রয়েছে ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর।

          REALME NARZO 20

        15000 বছরের নিচে সেরা ফোন এর সেরা ফোনটি হচ্ছে Realme Narzo 20। কারণ এই ফোনটি আপনার প্রতিদিনের সকল কাজই চালু করতে সহজে।

        এটিতে রয়েছে Mediatek-এর G85 প্রসেসর যা একটি গেমিং প্রসেসর। তাই এই মোবাইলের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরনের গেম-ই খেলতে পারবেন।

        এই ফোনে রয়েছে 6000mAh এর একটি শক্তিশালী ব্যাটারী। তাই মালিকানা শেষ হওয়া নিয়ে আপনাকে কোনো চিন্তা করতে হবে না। শুধুমাত্র যোগাযোগের জন্য 18W এর ফাস্ট ব্যবসায়ীদের সুবিধা আছে।


        স্পেসিফিকেশন:

        • ডিসপ্লে: 6.52″ IPS LCD
        • রেজোলিউশন: HD+
        • প্রসেসর: মিডিয়াটেক হেলিও জি 85
        • GPU: MALI G52
        • প্রধান ক্যামেরা: 48MP+8MP+2MP
        • সামনের ক্যামেরা: 8MP
        • RAM: 4GB
        • স্টোরেজ: 64 জিবি
        • ব্যাটারি: 6000mAh
        • চার্জার: 18W


        শেষ কথা, এই ফোনগুলো জাস্ট অফিসিয়াল মূল্য দেওয়া আছে । so 

        আমরা শুধুমাত্র ফোনের অফিশিয়াল মূল্য দেখালেও ফোনের মূল্য পরিবর্তন হতে থাকে এবং এসকল মূল্য পরিবর্তনের পর আমাদের নতুন করে সংগ্রহ এবং আপডেট করতে হয়। আমাদের মতো যেকোনো প্রাইস ওয়েবসাইটের পক্ষে সর্বসময় সকল ফোন মডেলের ক্ষেত্রে সর্বশেষ বাজারমূল্য প্রদান করা সম্ভব নয় এবং আমাদের আপডেটের ক্ষেত্রে বিলম্ব হতে পারে। তাই আমাদের ওয়েবসাইট দেখে আপনার কোনো ফোন পছন্দ হলে সেই ফোনের ব্র্যান্ডটির অফিশিয়াল ওয়েবসাইট, শোরুম বা ভেরিফাইড সোশাল মিডিয়া পেজে যোগাযোগ করে সর্বশেষ আপডেটেড মূল্য জেনে নিন। 


        আরো পড়ুন:

        1. আই ফোন সারা পৃথিবীতে বিখ্যাত কোনো 
        2. প্রসেসর কি 
        3. বাংলাদেশে dslr ক্যামেরার দাম 
        4. সফ্টওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং কি ?
        5. বিশ্বের সেরা 11টি জনপ্রিয় অনলাইন মোবাইল গেম
        6. নতুন গেমিং ল্যাপটপ 2022
        7. নতুন গেমিং পিসি 2022 |
        8. ২০ থেকে ৩০ হাজার টাকা দামের মধ্যে ভালো ফোন 
        9. কম্পিউটার ভাইরাস কি ? কম্পিউটারে ভাইরাস থেকে রক্ষা পাওয়ার উপায় কি ?
        10. 10000-এর নীচে সেরা ফোন 


        0/পোস্ট এ কমেন্ট/Comments