MediaTek Helio G96 vs MediaTek Helio G88

 



গত কয়েকবছর যাবত এন্ট্রি বাজেট কিংবা লোয়ার মিড রেঞ্জ সেগমেন্টের ডিভাইস গুলো বেশ ধাপটের সাথে রাজত্ব করছে MediaTek এর G এবং P সিরিজের চিপসেটগুলো। চাইনিজ ম্যানুফেকচার’রা এইসব চিপসেট ব্যবহারে এগিয়ে থাকে বরাবরই। এরই ধারাবাহিকতায় MediaTek Helio G95 ও G85 চিপসেটগুলোকে গেমিং ওরিয়েন্টেড করে বানানোতে বেশ সাড়া ফেলেছিল। এমনকি আমাদের দেশে বর্তমানে অনেকগুলো ফোন অফিশিয়ালি পাওয়া যাচ্ছে এই চিপসেটগুলো দিয়ে। এই চিপসেটগুলোর সাফল্যর পর MediaTek এর দুই চিপসেটের রিফ্রেশড ভার্সন এনাউন্স করে এই মাসের মাঝামাঝিতে। পূর্ববর্তী জেনারেশনের চিপসেটগুলো গেমিং ওরিয়েন্টেড হলেও রিফ্রেশড ভার্সনগুলো জোর দেওয়া হয়েছে অন্যদিকে। তাই কিছুদিন পর হলেও Helio G96 ও G88 স্পেফিসিকেশন ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে আলোচনা করার জন্য নতুন একটি  আর্টিকেলের আগমন।

MediaTek Helio G96

প্রথমেই আসা যাক Helio G96 নিয়ে। সিপিউ সেগমেন্টে দেখা যাচ্ছে আগেই মতই অর্থাৎ bigLITTLE আর্কিটেকচারে ২টি Cortex-A76 এবং ৬টি Cortex-A55 কোর রয়ে গিয়েছে যারা সর্বোচ্চ 2.05 GHz ক্লক স্পিডে চলবে। কিন্তু জিপিউতে দেখা যাচ্ছে আপগ্রেডে না করলেও বরঞ্চ ডাউনগ্রেড করে দেওয়া হয়েছে। আগে ছিল Mali-G76 MC4 কিন্তু রিফ্রেশড Helio G96 এ দেওয়া হয়েছে Mali G57 MC2 যা কিনা স্পষ্টত ডাউনগ্রেড। যদিও এতে MediaTek HyperEngine 2.0 Lite gaming suite এড করা হয়েছে কিন্তু Helio G96 এর নেমিং দেখে Helio G95 থেকে বেটার গেমিং পারফরমেন্স পাওয়া যাবে না। প্রকৃতপক্ষে Dimensity 700 & Dimensity 800 চিপসেটগুলোতেও Mali G57 MC2 জিপিউ ব্যবহার করা হয়েছে। তাই MediaTek হয়ত G সিরিজকে Dimensity সিরিজের চিপসেটগুলোর কম্পিটিটর বানাতে চাচ্ছে না। একদিকে ডাউনগ্রেড থাকলে ডিসপ্লে ও ক্যামেরা সেকশানে রয়েছে আপগ্রেড। পূর্ববর্তী Helio G95 এ 1080p রেজ্যুলেশনে 90Hz রিফ্রেশ রেইট সাপোর্ট করলেও বর্তমানে 120Hz সাপোর্ট করবে। তাছাড়া AMOLED বা LCD উভয় প্যানেলই সাপোর্ট করবে। অন্যদিকে ক্যামেরা সেকশানে দেখা যাচ্ছে 64MP হায়েস্ট ক্যামেরা সেন্সর থেকে 108MP উন্নিত করা হয়েছে এবং সেলফি ক্যামেরা সর্বোচ্চ 32MP সেন্সর সাপোর্ট করবে। যার কারণে MediaTek বলছে, এই চিপসেটে ফটোগ্রাফিক এবেলিটি বাড়ানো হয়েছে।

MediaTek Helio G95

তাছাড়া ছোটখাটো আপগ্রেড যেমনঃ  Cat-13 4G LTE মডেম সংযোজন, UFS 2.2 এবং লেটেস্ট  Bluetooth 5.2 ভার্সন সাপোর্ট দেওয়া হয়েছে এতে।

MediaTek Helio G88

MediaTek Helio G85 এর সাকেসর হিসেবে এসেছে Helio G88। কিন্তু এটিতেও MediaTek ফটোগ্রাফিক ক্যাপাবিলিটি দিকে ফোকাস করেছে। সেই জন্য দেখা যাচ্ছে মেইন ক্যামেরা সেন্সর সাপোর্ট 48MP থেকে 64MP করা হয়েছে। এছাড়া ডুয়েল ক্যামেরাতে বোকেহ সাপোর্ট, ক্যামেরা কন্ট্রোল ইউনিট(CCU), ইলেকট্রনিক ইমেজ স্ট্যাবিলাইজেশন(EIS) সহ বেশ কয়েকটি টেকনোলজি দিয়েছে Helio G88’তে। আবার ডিসপ্লেতেও মাইনর একটি আপগ্রেড এসেছে, সেটি হচ্ছে আগেফ 720P রেজুলেশনে 90Hz রিফ্রেশ রেইট সাপোর্ট করত কিন্তু নতুন চিপসেটে সেইম রিফ্রেশ রেইট 1080P রেজুলেশলেও সাপোর্ট করবে।

 MediaTek Helio  G88

এই কয়েকটি ছোটখাট আপগ্রেড ছাড়া সিপিউ জিপিউর স্পেফিসিকেশন ঠিক একদম আগেই মতই রাখা হয়েছে। অর্থাৎ ২টি  Cortex-A75 এবং ৬টি Cortex-A55 কোরের সাথে গ্রাফিক্স প্রসেসিং এর জন্য রয়েছে Mali-G52 MC2 জিপিউ।Helio G96 এর মত এইখানেও MediaTek HyperEngine 2.0 lite gaming suite দেওয়া হয়েছে।

0/পোস্ট এ কমেন্ট/Comments