ক্যাশ আউট চার্জ কমাল না বাড়াল bKash?




এই বছরের শুরুতে থেকেই আমরা bKash কে তাদের সার্ভিস ট্যারিফ নিয়ে অনেক এদিক সেদিক করতে দেখতে পাচ্ছি। দফায় দফায় সেন্ড মানিতে চার্জ বাড়ানো কমানোর পর আমরা দেখতে পেয়েছিলাম bKash এটিএম থেকে ক্যাশ আউট ১৫ টাকার নিচে নামিয়ে ছিল। এখন আমরা আবার দেখতে পাচ্ছি বেশকিছু শর্ত সাপেক্ষে bKash ক্যাশ আউট এর ক্ষেত্রে এজেন্টদের থেকেও ক্যাশ আউট করলেও তার চার্জ কমিয়ে ১৫ টাকার নিচে নামানো হয়েছে। যার কারণে bKash আমরা দেখতে পাচ্ছি “খরচ কমল বলে বিকাশে” বলে ব্যাপক মার্কেটিং নেমেছে bKash। কিন্তু আমরা অনুসন্ধান করে দেখেছি একদিকে খরচ কমালে অন্যদিকে চুপিচুপি খরচ বাড়িয়ে দিয়েছে bKash। আমাদের আর্টিকেলে আমরা নতুন ক্যাশ আউটের শর্তগুলো বিস্তারিত আপনাদের সামনে তুলে ধরব। তো, চলুন শুরু করা যাক-




প্রথমেই দেখা যাক এজেন্ট থেকে ১৪.৯০ টাকায় ক্যাশ আউট করতে হলে যে যে শর্ত মানতে হবে-


প্রথমত, আপনাকে প্রিয় নাম্বারের মত একটি প্রিয় এজেন্ট নাম্বার সিলেক্ট করতে হবে শুধুমাত্র তার কাছ থেকেই ক্যাশ আউটের সময় আপনি ১৪.৯০ টাকায় ক্যাশআউট করতে পারবেন। তবে অবশ্যই তা ২৫০০০ টাকা পর্যন্ত। এর বেশি হলে রেগুলার ক্যাশ আউট চার্জ করবে bKash। এইখানেও বর্ডার লেনদের ক্ষেত্রে অর্থাৎ আপনার যদি ২৪৭০০ টাকা পর্যন্ত লিমিট ব্যবহার করে পরের বার ৫০০ টাকা ক্যাশ আউট করতে চান সেক্ষেত্রে ২৫০০০ লিমিট ক্রস হয়ে যাওয়ার কারণে ১৪.৯০ টাকা ক্যাশ আউট চার্জ প্রযোজ্য হবে না। এছাড়া অন্য একটি শর্ত হচ্ছে, প্রিয় এজেন্ট নাম্বার অবশ্যই পরিবর্তন যোগ্য তবে সেটি প্রতিমাসে একবারই করা যাবে।



এইবার আসা যাক, প্রিয় এজেন্ট নাম্বার ছাড়া ক্যাশ আউট চার্জ কি রকম হবে?
আপনারা অনেকেই ভাবছেন নন-প্রিয় এজেন্ট নাম্বারে রেগুলার ক্যাশ আউট চার্জই প্রযোজ্য হবে। হ্যাঁ, আপনাদের ধারণা সঠিক। কিন্তু টূইস্ট হচ্ছে, আগে যেখানে এজেন্ট থেকে ক্যাশ আউট চার্জ ১৭.৫০ টাকা ছিল সেখানে নতুনভাবে ক্যাশ আউট ট্যারিফ আপডেট করার সময় এই ১৭.৫০ টাকা থেক বাড়িয়ে ১৮.৫০ করা হয়েছে। সেটা প্রিয় এজেন্ট নাম্বারে ২৫০০০ টাকার বেশি লেনদেনর ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য।






তাই দেখা যাচ্ছে, যাদের খুববেশি লেনদেন করতে হয় না তাঁদের জন্য এই ট্যারিফ অত্যন্ত কার্যকরী। কারণে আমরা যদি সর্বোচ্চ লিমিট ২৫০০০ টাকাকে বেইস করে ক্যালকুলেট করি তাহলে দেখা যাচ্ছে, আগে ১৭.৫০ টাকা ক্যাশ আউট চার্জ দিয়ে ২৫০০০ টাকা ক্যাশ আউট করতে খরচ করতে হত (২৫০০০ × ১.৭৫%) = ৪৩৭.৫ টাকা কিন্তু নতুন ট্যারিফে তা (২৫০০০ × ১.৪৯%) = ৩৭২.৫ টাকা অর্থাৎ ৬৫ টাকা সাশ্রয় করতে পারবে। আবার অন্যদিকে, কোনো কারণে যদি প্রিয় এজেন্ট নাম্বার থেকে ক্যাশ আউট করা না যায় সেক্ষেত্রে আগের চেয়ে বেশি খরচ হবে।




কিন্তু ছোট থেকে মাঝারি ব্যবসায়ী যাদের মাসে কম করে হলেও লাখ টাকা বা তার বেশি টাকার বেশি ক্যাশ আউট করতে হয় তাঁদের জন্য এই ট্যারিফে বাস্তবে খরচ বেড়ে গিয়েছে। এর চেয়ে বড় কথা হচ্ছে ফেক্সবিলিটি চলে যাওয়া। কারণ একটি মাত্র প্রিয় এজেন্ট নাম্বার থেকেই কম খরচে ক্যাশ করতে হবে যার কারণে একজন নির্দিষ্ট এজেন্টের কাছে থেকেই। যা মোবাইল ফ্যাইন্যান্সিয়াল সার্ভিসের ফেক্সবিলিটির আইডিয়া কিছুটা হলেও বিপরীত।



যেভাব প্রিয় এজেন্ট নাম্বার সেট করবেন-

অ্যাপের মাধ্যমে-






USSD ডায়ালের মাধ্যমে-





0/পোস্ট এ কমেন্ট/Comments